/ Celebrity: Lifestyle /

জয়া আহসান কলকাতার পূজায়

কলকাতার পূজাতে জয়া আহসান
Hebiro Stuff on October 11, 2016 - 5:36 pm » CATEGORY: Celebrity: Lifestyle

শুধু বাংলাদেশ নয় কলকাতার ও বেশ জনপ্রিয় জয়া আহসান।  ঢাকা-কলকাতায় দুই জায়গাতেই বেশ কিছু বছর ধরে দেখা যাচ্ছে তাকে। বছরের তিন মাস ঢাকার ইস্কাটনের বাসা তো বাকি তিন মাস কলকাতার সল্ট লেকের বাসা। এখন দেশে নেই আমাদের এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী। তার এক মাত্র উদ্দেশ্য পূজা উৎসব।


জয়া আহসান
কলকাতার পুজা নিয়ে পরিচালিত২৪ ঘণ্টা নামের একটি চ্যানেলের রিয়্যালিটি শো-তে বিচারকের দায়িত্ব পালন করছেন বর্তমানে। এমনকি কলকাতা শহরের বিভিন্ন পূজা মণ্ডপ ঘুরছেন জয়া আহসান

পুজা নিয়ে নানা ধরনের অভিজ্ঞতা রয়েছে তার। এই অভিজ্ঞতা নিয়ে রোববার পশ্চিমবঙ্গের প্রথমসারির গণমাধ্যম আনন্দবাজারে প্রকাশ হওয়া একটি খবরে, অনুলিখন আকারে প্রকাশ করা হয়। আর দেশে থাকাকালীন তিনি বরাবরই পুরান ঢাকা যেতেন পুজা উপভোগ করতে যা এখন খুবই মিস করেন তিনি।

সেই প্রকাশনাতে তিনি আর ও বলেন – ‘প্রতি বছরই আমার নিজের মধ্যে একটা দ্বিধা চলতে থাকে দূর্গা পূজায় কোথায় থাকব কলকাতা না বাংলাদেশ। পূজার পরিবেশ বরাবরই আমার চেনা। কলকাতা এমন একটা শহর, যেখানকার পূজা দেখবেন বলে দূর-দূরান্ত থেকে অনেক মানুষ আসেন। আমি কলকাতার পূজোর অসাধারণ আয়োজন মিস করতে চাই না আর এই পূজা দেখার অভিজ্ঞতা আমার আগেও হয়েছে। কলকাতার মানুষ এই পূজা উপলক্ষে অনেক সাজগোজ করে আর অনেক মানুষ এখানে আসে যা দেখতে আমার খুব ভাল লাগে’

কলকাতার পূজাতে জয়া আহসান / Joya Ahsan / অভিনেত্রী / দুর্গাপূজা / Bangladeshi Actress / Celebrity / Celebrity Lifestyle / Durga Puja / Hebiro.com / Hebiro / Fashion & Lifestyle Portal / Online Magazine / Bangladesh

এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী তার এক দারুন অভিজ্ঞতার কথা এবার আমাদের জানালেন – পূজার মধ্যে কোনো একটা দিন সে বের হয়েছিল কোন একটা কাজে। বাড়ি ফিরতে প্রায় সন্ধ্যা। কী ভিড় রাস্তায়, কত লোক সেজেগুজে ঠাকুর দেখতে বেরিয়েছে, এত জ্যাম আমার গাড়ি একচুলও নড়ছে না। একই জায়গায় আটকে রয়েছি বহুক্ষণ। তারপর কী করব, কী করব- ভাবতে ভাবতে মনে হল একটা রিস্ক নিয়ে দেখাই যাক না! নেমে পড়লাম গাড়ি থেকে। হাঁটতে শুরু করলাম। সেদিন  কলকাতার পূজা দেখতে দেখতে অনেক রাতে হেঁটে বাড়ি ফিরেছিলাম। সে এক অসাধারণ অভিজ্ঞতা ছিল

ঢাকার পূজা সম্পর্কে জিজ্ঞেস করা হলে জয়া আহসান বলেন – পুরনো ঢাকার ঢাকেশ্বরী মন্দিরে অনেক বড় পূজা হয়। সেখানে অনেক মানুশ থাকে। এমনকি সেখানে বেশ কিছু বন্ধুও থাকে যাদের থেকে অনেক উপহারও পাওয়া যায়। সেই দিন গুলো আর পুরান ঢাকার পূজা খুব মিস করি

আমাদের গেরিলাখ্যাত এই অভিনেত্রী জয়া আহসান সবশেষে বলেন – ‘যে কোন ফেস্টিভ সিজন মানে সেটা ঈদ হোক বা দুর্গাপূজা, যাই হক না কেন আমি কোন ডায়েট ফলো করি না। যা কিছু ভোগ দাওয়া হক না কেন চেটেপুটে খাই। আমি এসব খাবার খুব পছন্দ করি। আমি পূজোতে যে শুধু শাড়ি পরি তা নয়, ধরুন ষষ্ঠীতে কুর্তির সঙ্গে ওয়ের্স্টান কিছুও পড়ি। হলুদ আমার খুব পছন্দের রঙ তাই সপ্তমীর সকালে সুদিং কালারের হালকা কোনো শাড়ি স্লিভলেস ব্লাউজ দিয়ে পরব। আমার মনে হয় পূজার দিনে যে কোনো প্যাস্টেল শেড অনেক ভাল মানাবে। আমি সব জায়গাতে আমার পার্সোনাল পছন্দকে প্রাধান্য বেশি দেই। তাই শাড়ির পাশাপাশি ইন্দো-ওয়ের্স্টানও পরব। পূজোতে সবাই খুব সুন্দর করে সাজগোজ করে আর সবাই একসাথে আসে  দেখতে খুবি ভাল লাগে। তা দেখেই আমার এবারের  দূর্গাপূজা কাটবে।

682 views

0 POST COMMENT

Send Us A Message Here

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three × 5 =